#morning tribune#bd

সুষ্ঠু নির্বাচন পরিচালনায় ব্যর্থ হলে জোর করে নির্বাচনে যাওয়ার হুঁশিয়ারি ইমরান খানের

অনলাইন ডেস্কঃ

 গত মাসে ইসলামাবাদে অনুষ্ঠিত এক জনসভায় সেখানের এক নারী বিচারক ও পুলিশ প্রধান কে হুমকি প্রদানের জেরে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিরুদ্ধে আদালতে সন্ত্রাসবিরোধী আইনে অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করা হয়।

এরপর অগ্রিম জামিন চেয়ে আদালতের কাছে আবেদন করেন ইমরান খান। পরবর্তীতে আরেক দফা সময় বাড়ানোর পর অবশেষে আজ তার জামিনের সময়সীমা শেষ হচ্ছে। এ বিষয়ে তাঁর বিবৃতিতে ইমরান খান বলেন ,জেলে যেতে ভয় পান না তিনি। তিনি বলেন ,দেশের প্রকৃত স্বাধীনতা রক্ষার্থে নিজের জীবন উৎসর্গ করতে তিনি প্রস্তত সেখানে জেলবন্দী হওয়া তো অনেক ছোট ব্যাপার। বর্তমান সরকার তাঁকে নির্বাচন থেকে দূরে রাখার জন্য মাইনাস ওয়ান ফর্মুলা প্রয়োগ করে তার বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা মামলা দিয়ে যাচ্ছে বলে দাবি তার। কারণ নির্বাচনের ফলাফল কি হতে পারে তা শাহবাজ সরকারের কাছে পরিষ্কার। তার বিবৃতিতে তিনি আরও বলেন,শাহবাজ সরকার যদি অবাধ এবং সুষ্ঠু নির্বাচন দিতে ব্যর্থ হয় তাহলে জোর করে নির্বাচনে যাবেন ইমরান খান ও তার দল। পাকিস্তানকে নতুন করে ঢেলে সাজানোর জন্য তরুণ প্রজন্মের সহযোগিতা কামনা করেছেন তিনি।

Leave a Comment

Your email address will not be published.