#News#Bd#Morningtribune#latest

ঢাবির শান্তি ও সংঘর্ষ অধ্যয়ন বিভাগে সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার আয়োজন

মোল্লা মোঃ তৈমুর রহমান
শিক্ষার্থীদের সহশিক্ষা কার্যক্রমে উৎসাহ প্রদান ও মানসিক বিকাশকে সমৃদ্ধ করতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শান্তি ও সংঘর্ষ অধ্যয়ন বিভাগ আয়োজন করে সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার আয়োজন করে। আজকে অনুষ্ঠানটির পুরষ্কার বিতরনী অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়াও একটি সাংস্কৃতিক পরিবেশনা অনুষ্ঠানের শোভা বৃদ্ধি করে৷ সামাজিক বিজ্ঞান ভবনের মুজাফফর আহমেদ চৌধুরী মিলনায়তনে অনুষ্ঠানটির আয়োজন করা হয়।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী এবং বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়, রংপুর এর সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ। তিনি উক্ত আয়োজনের সাথে যুক্ত সকল শিক্ষক, শিক্ষার্থী এবং কলাকুশলীদের সাধুবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি এ ধরণের কার্যক্রম নিয়মিত আয়োজন করতে অন্যান্য বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের আহ্বান জানান।
এছাড়াও উক্ত অনুষ্ঠানের অন্যতম বিশেষ অতিথির আসন অলংকৃত করেন বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশনের সদ্য-বিদায়ী সদস্য প্রফেসর মো. হামিদুল হক। তাঁর বক্তব্যে, সাংস্কৃতিক কার্যক্রমে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণের গুরুত্ব তুলে ধরে তিনি বলেন এই সময় গুলো শিক্ষার্থীদের মননে চির ভাস্মর হয়ে থাকবে। এছাড়াও নেতৃত্বের গুণাবলি বিকাশ ও ভবিষ্যত কর্মজীবনে এমন আয়োজনের ভূমিকা নিয়েও শিক্ষার্থীদের আলোকপাত করেন।
সভাপতি হিসেবে ছিলেন বিভাগের চেয়ারম্যান ড: সাবের আহমেদ চৌধুরী। শিক্ষার্থীদের মানসিক স্বাস্থ্য বিকাশে সহ-শিক্ষা কার্যক্রম হিসেবে সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা এবং অন্তঃবিভাগ ক্রীড়ার এ ধরণের আয়োজন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
৮টি বিভাগ- নজরুল সংগীত, রবীন্দ্রসংগীত, দেশাত্মবোধক গান, নাচ, দাবা, টেবিল টেনিস, উপস্থিত বক্তৃতা ও বিতর্কতে মোট ২৪ জন শিক্ষার্থী পুরষ্কার লাভ করে।
এছাড়াও বিভাগের সকল শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী ও শিক্ষার্থীর প্রাণবন্ত উৎসাহে অনুষ্ঠানটি মুখরিত থাকে।
অনুষ্ঠানটির উপস্থাপক একজন বিদেশি পর্যটকের কাছে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ এবং সাহিত্য-সংস্কৃতি তুলে ধরার মাধ্যমে ব্যতিক্রমী এই আয়োজনটি মঞ্চস্থ হয়৷ নাচ, গান, আবৃত্তি, অভিনয়ের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা আমন্ত্রিত অতিথিদের সামনে তাদের প্রতিভা তুলে ধরে।

Leave a Comment

Your email address will not be published.